বৃহস্পতিবার 06 আগষ্ট 2020 - 5:49:00 সকালে

এমিরেটস ওয়াটার অ্যান্ড ইলেকট্র‌িসিটি কোম্পানি বিশ্বের বৃহত্তম সৌরবিদ্যুৎ কেন্দ্র বিকশিত করবে


আবু ধাবি, 26 জুলাই, 2020 (ডাব্লুএএম) -- সংযুক্ত আরব আমিরাতের জল এবং বিদ্যুৎ পরিকল্পনা, ক্রয় ও পরিষেবা সরবরাহের শীর্ষস্থানীয় সংস্থা এমিরেটস ওয়াটার অ্যান্ড ইলেকট্র‌িসিটি কোম্পানি (ইডব্লিউইসি) আবুধাবিতে বিশ্বের বৃহত্তম সৌরবিদ্যুৎ কেন্দ্রের জন্য পুরষ্কার ঘোষণা করেছে। প্রকল্পটি আবুধাবি ন্যাশনাল এনার্জি কোম্পানি (টিএকিউএ), এবং মাসদার নেতৃত্বে একটি কনসোর্টিয়ামকে পুরস্কৃত করা হয়েছিল। এর মধ্যে 2 গিগাওয়াট আল ধফরা সোলার ফোটোভোলটাইক (পিভি),ইনডিপেন্ডেন্ট পাওয়ার প্রডিউসার (আইপিপি) প্রকল্প বিকাশের জন্য ফরাসি ইলেকট্রিক ইউটিলিটি সংস্থা ইডিএফ এবং জিনকো পাওয়ারের বিকাশের অংশীদাররা অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। যা আবুধাবি শহর থেকে প্রায় 35 কিলোমিটার দূরে অবস্থিত। রবিবার ইডব্লিউইসি কর্তৃক জারি করা প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে যে প্রোজেক্ট পাওয়ার পারচেস (পিপিএ) এবং শেয়ারহোল্ডারদের চুক্তি ইডব্লিউইসির সাথে স্বাক্ষরিত হয়েছে। এই উপলক্ষে ইডব্লিউইসি-র চিফ এক্সিকিউটিভ অফিসার ওসমান আল আলী বলেছেন, "আমরা আমাদের অংশীদারদের সাথে কাজ করে এবং সৌর শক্তির জন্য রেকর্ড-লো-শুল্ক নিয়ে পিপিএ-তে স্বাক্ষর করতে পেরে খুশি। আমরা দীর্ঘমেয়াদী শক্তি সরবরাহ সুরক্ষার ক্ষেত্রে সৌরশক্তির অবিচ্ছেদ্য ভূমিকা জোরদার করতে এবং বর্তমান এবং ভবিষ্যতের জ্বালানী চাহিদা মেটাতে কাজ করছি। বড় ধরণের প্রযুক্তিগত বিকাশের সাথে মিলিত আল ধাফরা সোলার পিভি প্রকল্পটি আমাদের বিদ্যমান বিদ্যুৎ সরবরাহের দৃষ্টিভঙ্গিকে বৈচিত্র্যকরণের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ প্রভাব ফেলবে।"

টিএকিউএর গ্রুপ সিইও এবং ব্যবস্থাপনা পরিচালক জসিম হুসেন থাবাত বলেছেন, "আল ধাফরা সোলার পিভি প্ল্যান্ট আমাদের দেশ এবং বৈশ্বিক জ্বালানি সেক্টরের জন্য একটি মানদণ্ড প্রোজেক্ট। প্রকল্পের স্বল্প শুল্ক এবং সর্বোত্তম-শ্রেণীর প্রযুক্তির ব্যবহার ইউটিলিটি-স্কেল পুনর্নবীকরণযোগ্য শক্তি প্রকল্পগুলির সম্ভাব্যতা প্রদর্শন করে যা সংযুক্ত আরব আমিরাত শক্তি কৌশল 2050-এ উল্লেখ করা উচ্চাভিলাষী শক্তি উদ্দেশ্য পূরণে আমাদের দেশের অগ্রগতিকে গতি দিয়েছে।"

তিনি বলেছেন, "একবার পুরোপুরি চালু হয়ে গেলে, প্ল্যান্টটি আবুধাবির সৌরবিদ্যুতের ক্ষমতা প্রায় 3.2 গিগাওয়াট করবে।"

আল ধাফরা সোলার পিভি প্রোজেক্ট সংযুক্ত আরব আমিরাতে প্রায় 160,000 বাড়িতে বিদ্যুৎ সরবরাহ করবে বলে আশা করা হচ্ছে। এটা টিএকিউএ বিদ্যমান 1.2 গিগাওয়াট 'নূর আবু ধাবি' সৌর প্লান্টের চেয়ে বড় হবে, যা বর্তমানে বিশ্বের বৃহত্তম কর্মক্ষম একক-প্রকল্প সৌর পিভি প্ল্যান্ট। মাসদার মুখ্য নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ জামিল আল রামাহী বলেছেন, "আল ধাফরা প্রকল্পের পুরষ্কারের মাধ্যমে সংযুক্ত আরব আমিরাত আবারও স্বচ্ছ শক্তির উত্সে বিশ্বব্যাপী পরিবর্তনের নেতৃত্ব দেওয়ার দৃঢ় প্রত্যয়কে নিশ্চিত করছে, দক্ষতার সাথে প্রচুর পরিমাণে সৌর শক্তি প্রযুক্তির সর্বশেষ অগ্রগতি স্থাপন করেছে। মাসদারে আমরা ইডব্লিউইসি, টিএকিউএ, ইডিএফ, জিনকোপাওয়ার এবং এই অসামান্য প্রকল্পের সাথে যুক্ত আরও অনেক নামীদামী অংশীদারদের সাথে যোগদান করার জন্য আমরা সম্মানিত। প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে প্রকল্পের মাধ্যমে 60 শতাংশ অংশীভূত টিএকিউএ এবং মাসদারের মালিকানা পাবে, বাকি 40 শতাংশই ইডিএফ এবং জিনকোপাওয়ারের মালিকানাধীন হবে। সম্পূর্ণরূপে চালু হয়ে গেলে, আবুধাবির সৌরবিদ্যুতের ক্ষমতা প্রায় 3.2 গিগাওয়াট পর্যন্ত বেড়ে যাবে। অনুবাদ: এম. বর। http://www.wam.ae/en/details/1395302858072

WAM/Bengali